June 29, 2017, 4:28 am | ২৮শে জুন, ২০১৭ ইং,বৃহস্পতিবার, রাত ৪:২৮

ক্ষমা চাইবেন না সঞ্জয় দত্ত

how-much-is-sanjay-dutt-worthঢাকা জার্নাল: ১৯৯৯৩ সালের মুম্বাই বোমা হামলার ঘটনায় পাঁচ বছর কারাদণ্ড প্রাপ্ত বলিউড অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত দণ্ড থেকে রেহাই পেতে ক্ষমা ভিক্ষা করবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন।

আদালতের রায় ঘোষণা পর বৃহস্পতিবার সকালে প্রথমবারের মতো সাংবাদিকদের সামনে এসে এক সংবাদ সম্মেলনে সঞ্জয় বলেন, “ক্ষমা করে দেওয়ার জন্য আমি আবেদন করবো না। সর্বোচ্চ আদালত আমাকে সময় দিয়েছেন এবং আমি এই সময়ের মধ্যেই আত্মসমর্পণ করবো। তবে, আমাকে অনেক কাজ শেষ করতে হবে। আমি আমার পরিবারের সঙ্গেও কিছু দিন কাটাতে চাই।”

সাদা টি-শার্ট গায়ে ও কপালে একটি লাল তিলক দিয়ে আসা সঞ্জয়কে সংবাদ সম্মেলনে বেশ জড়োসড়ো থাকতে দেখা যায়। আরও কিছু কথা বলতে চাইলেও আবেগকে ধরে রাখতে পারছিলেন না তিনি। অশ্রু সংবরণ করতে বারবার হাত দিয়ে মাথা ঢেকে নিচ্ছিলেন। এসময় পাশে থাকা বোন ও কংগ্রেস দলীয় সাংসদ প্রিয়া দত্ত তাকে সান্ত্বনা দিচ্ছিলেন। এক পর্যায়ে বোনকে জড়িয়ে ধরে ডুকরে কেঁদে ওঠেন সবার প্রিয় ‘মুন্নাভাই’। সাংবাদিকদের কোনো প্রশ্নের উত্তর না দিয়ে দ্রুত সংবাদ সম্মেলন শেষ করে চলে যান তিনি। তবে শেষ বাক্যে এই বলিউড তারকা বলে যান, “আমি আমার দেশকে ভালোবাসি।”

গত সপ্তাহে আদালতের রায় ঘোষণার পর এই অভিনেতা কবে আত্মসমর্পণ করবেন অথবা সাড়ে তিন বছর কারাভোগ থেকে রক্ষা পেতে তার ক্ষমা প্রার্থনা করা উচিত কিনা প্রভৃতি বিষয়ে অনেক জল্পনা কল্পনা ছড়িয়ে পড়ে। এরই প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার সঞ্জয় তার নিজের বক্তব্য জানিয়ে দিলেন।

এর আগে, ‘সঞ্জুবাবা’কে ক্ষমা করে দিতে মহারাষ্ট্রের গভর্নরের প্রতি অনুরোধ জানিয়ে চিঠি লিখেছেন এমনকি দেখা করেছেন অনেক রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বও। এদের মধ্যে সাবেক সমাজবাদী দলের নেতা অমর সিং, অভিনেত্রী জয়া বচ্চন ও জয়া প্রদা গভর্নর কে. শঙ্কর নারায়ণের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। সঞ্জয়কে ক্ষমা করে দেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে গভর্নরকে চিঠি লেখেন প্রেস কাউন্সিল প্রধান ও বিচারপতি মার্কান্দে কাজু।

যদিও ভারতের প্রধান বিরোধী দল বিজেপি ও কট্টরপন্থি শিবসেনা সঞ্জয়কে ক্ষমা করে দেওয়া উচিত হবে না বলে মন্তব্য করে। তথাপি সরকারের পক্ষ থেকেও জানানো হয়েছিল, সঞ্জয় ক্ষমা চাইলে জনগণের আবেগকে শ্রদ্ধায় রেখে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

ঢাকা জার্নাল, মার্চ ২৮, ২০১৩

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল