June 27, 2017, 9:38 am | ২৭শে জুন, ২০১৭ ইং,মঙ্গলবার, সকাল ৯:৩৮

বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ

Abdul-hamid-bg20130421022300ঢাকা জার্নাল: আব্দুল হামিদই হচ্ছেন বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংসদীয় দল তাকে মনোনয়ন দেওয়ার পর তার রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হওয়া এখন কেবল সময়ের ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে।

কেননা এ নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে না বিরোধী দল বিএনপি। মহাজোটের কোন শরিক দলও প্রার্থী রাখছে না রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে। তাই আব্দুল হামিদই এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ও তাদের নেতৃত্বাধীন মহাজোটের একমাত্র প্রার্থী। উপরন্তু তাদের রয়েছে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা।

তাই আব্দুল হামিদের সামনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হওয়ার বাস্তবতা তৈরি হয়েছে।

এ পরিস্থিতিতে আগামী দিনের অস্থির রাজনীতির কঠিন চ্যালেঞ্জও মোকাবেলা করতে হবে তাকেই।

একদিকে জামায়াত-বিএনপি গাঁটছড়ায় একের পর এক হরতাল, অবরোধ, অসহযোগ ও যুদ্ধাপরাধীদের বিচার নিয়ে তৈরি হওয়া অস্থিরতা, অন্যদিকে গণজাগরণ মঞ্চের সঙ্গে যুদ্ধাপরাধের পক্ষের শক্তিগুলোর উত্তেজনা, সদ্য গজানো ধর্মাশ্রয়ী দল হেফাজতের সরকার ফেলে দেওয়ার আলটিমেটাম ইত্যাদি ইস্যুতে এখন অনেকটাই উত্তাল রাজনীতি। তারওপর শেষ হয়ে আসছে ক্ষমতাসীনদের ক্ষমতার মেয়াদ, এগিয়ে আসছে জাতীয় সংসদ নির্বাচন। সব মিলিয়ে এই চরম অস্থির সময়ের কাণ্ডারি হচ্ছেন আব্দুল হামিদ।

রোববার সকালে জাতীয় সংসদ ভবনে আওয়ামী লীগ সংসদীয় দলের নেতা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বৈঠকে সর্বসম্মতিতে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য প্রার্থী মনোনীত করা হয়েছে তাকেই।

ওই বৈঠকের পর জাতীয় সংসদের সরকারি দলের হুইপ স ম ফিরোজের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক আবদুল মতিন খসরু, সেগুফতা ইয়াসমিন এমিলি ও অ্যাড. ফজলে রাব্বি নির্বাচন কমিশনে যান মনোনয়নপত্র জমা দিতে।

নির্বাচন কমিশনের তফশিল অনুযায়ী, সোমবার মনোনয়নপত্র বাছাই হবে। বুধবার পর্যন্ত আছে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের তারিখ। তবে একমাত্র প্রার্থী হওয়ায় মনোনয়নপত্র বাতিল বা প্রত্যাহারের কোন সম্ভাবনা না থাকায় আগামী ২৯ এপ্রিল প্রকাশ্য ভোটে বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হবেন আব্দুল হামিদই।

আর এর মাধ্যমে রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে তৈরি হওয়া সাম্প্রতিক জল্পনারও পরিসমাপ্তি ঘটবে।

গত ২০ মার্চ রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের মৃত্যুর পর বাংলাদেশের পরবর্তী রাষ্ট্রপতি কে হচ্ছেন তা নিয়ে নানা কথাবার্তা ও বিভিন্ন জনের নাম শোনা গেলেও সম্ভাবনার মিছিলে সব সময়ই এগিয়ে ছিলেন আব্দুল হামিদ।

বিরোধী দল বিএনপির ভেতরে তার ইমেজ ভালো হওয়ায় ওই সম্ভাবনা বেড়ে গিয়েছিলো আরো। শেষ পর্যন্ত কোন ধরনের এক্সপেরিমেন্টের ঝুঁকি না দিয়ে অস্থির সময়ের রাষ্ট্রপতি হিসেবে ‘ভাটির শার্দুল’কেই বেছে নিলো আওয়ামী লীগ।

রোববার সকালে সংসদীয় দলের সভায় রাষ্ট্রপতি পদে আবদুল হামিদের নাম প্রস্তাব করেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য তোফায়েল আহমেদ। তাতে সমর্থন জানান উপদেষ্টা পরিষদের আরেক সদস্য আমির হোসেন আমু। এ পদে আর কারো নাম প্রস্তাবই করেন নি কেউ।

ঢাকা জার্না, এপ্রিল ২১, ২০১৩

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল