January 19, 2017, 12:44 pm | ১৯শে জানুয়ারি, ২০১৭ ইং,বৃহস্পতিবার, দুপুর ১২:৪৪

ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু

downloadঢাকা জার্নাল: আসন্ন ঈদুল ফিতর উপলক্ষে কমলাপুর রেলস্টেশনে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু হয়েছে। বুধবার সকাল ৮টা থেকে টিকিট বিক্রি শুরু হয়। আজ ১ জুলাইয়ের টিকিট দেওয়া হচ্ছে।

মঙ্গলবার রাত থেকে কমলাপুর রেলস্টেশনে ছিল টিকিটপ্রত্যাশীদের উপচে পড়া ভিড়। বিভিন্ন বয়সের নারী-পুরুষ গভীর রাত থেকেই টিকিটের জন্য এসে জড়ো হয়েছেন কাউন্টারের সামনে।

মোস্তাক আহমেদ নামের একজন সঙ্গে শ্যালক রনিকে নিয়ে এসেছেন যাত্রাবাড়ী থেকে। ১ জুলাই গ্রামের বাড়ি জামালপুর যাবেন। সকালে টিকিট পাওয়া যাবে, এ কারণে তিনি গতকাল রাতেই চলে এসেছেন বলে জানান।

সবগুলো কাউন্টারের সামনেই লোকজন দাঁড়িয়ে, বসে গল্প কিংবা তাস খেলে লাইন পাহারা দেন গতকাল। সময়ের সঙ্গে কাউন্টারের সামনে টিকিটপ্রত্যাশীদের ভিড়ও বাড়ে।

সরেজমিনে দেখা যায়, লাইনে দাঁড়ানো লোকজনের মধ্যে কোনো কালোবাজারি আছে কি না, তার তদারকি করছিলেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। তবে লাইনে দাঁড়াতে গিয়ে সবচেয়ে বেশি বিপদে পড়েছেন নারীরা। তাদের জন্য যে দুটি কাউন্টার আছে তা চাহিদার তুলনায় অনেক কম বলে অনেকেই অভিযোগ করেন।

এ ব্যাপারে কমলাপুর স্টেশন ম্যানেজার সিতাংশু চক্রবর্তীবলেন, এবার ২৩টি কাউন্টার খোলা হয়েছে। যা গতবারের তুলনায় বেশি। লাইনে থাকলেও সবাই টিকিট পাবেন। কেননা এবার ট্রেনের সংখ্যাও বাড়ানো হয়েছে। স্টেশনে কোনো ধরনের কালোবাজারি নেই বলে তিনি দাবি করেন। নারীদের কাউন্টার কম হলেও টিকিট দিতে সমস্যা হবে না বলে তিনি মনে করেন।

স্টেশনের অফিসে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ২৯টি আন্তনগর ট্রেনের সঙ্গে মোট ৬৮টি ট্রেনের টিকিট প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে বিক্রি করা হচ্ছে। এ ছাড়া স্পেশাল ট্রেন রয়েছে তিনটি। সব মিলিয়ে প্রতিদিন প্রায় ১৮ হাজার টিকিট বিক্রি করা হবে। একজন ব্যক্তি সর্বোচ্চ চারটি টিকিট সংগ্রহ করতে পারবেন।

ঢাকা জার্নাল, জুন ২২, ২০১৬।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল