June 27, 2017, 9:37 am | ২৭শে জুন, ২০১৭ ইং,মঙ্গলবার, সকাল ৯:৩৭

ওয়ালমার্টের কাছ থেকে ক্ষতিপূরণ আদায়ে ক্যাম্পেইন

0,,16404228_404,00ঢাকা জার্নাল: যুক্তরাষ্ট্রের তৈরি পোশাক ক্রেতা প্রতিষ্ঠান ওয়ালমার্টের কাছ থেকে বাংলাদেশের তাজরীন ফ্যাশানস-এ আগুনের ঘটনায় ৫ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ আদায়ের ক্যাম্পেইন শুরু হয়েছে৷

গত বছরের ২৪শে নভেম্বর ঢাকার অদূরে সাভারের আশুলিয়ায় তাজরীন ফ্যাশানস নামে পোশাক কারখানায় আগুন লেগে ১১৭ জন শ্রমিক নিহত হন৷ আহত হন দু’শতাধিক৷ ২৪ বছর বয়সের পোশাক শ্রমিক সুমি আবেদীন আগুন লাগার সময় ৫ তলায় কাজ করছিলেন৷ তিনি ৫ তলা থেকে লাফিয়ে পড়ে আহত হলেও প্রাণে বেঁচে যান৷ এই সুমি আবেদীন এখন যুক্তরাষ্ট্রের ওয়ালমার্টের কাছ থেকে ক্ষতিপূরণ আদায়ের প্রচারণায় অংশ নেবেন৷

এদিকে, ওয়ালমার্ট মঙ্গলবার জানিয়েছে বাংলাদেশে একটি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র নির্মাণে তারা মার্কিন একটি সংস্থাকে ১.৬ মিলিয়ন ডলার দেবে৷ অগ্নিনির্বাপণ ও কর্মক্ষেত্রে নিরাপত্তা বিষয়ে সেখানে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে৷ বার্তা সংস্থা এপি দিয়েছে এই খবর৷

বাংলাদেশ গার্মেন্টস এন্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল শ্রমিক ফেডারেশন এর সভাপতি বাবুল আক্তার  জানান, প্রধানত ওয়ালমার্টের জন্য পোশাক তৈরি করত তাজরীন ফ্যাশানস৷ কিন্তু ওয়ালমার্ট আগুনের পর ক্ষতিপূরণের জন্য নমনীয় হলেও পরে জানায় যে তারা সরাসরি তাজরীনকে কাজ দেয়নি৷ তাজরীন সাবকন্ট্রাক্টে কাজ করত৷

তাদের এই মনোভাবের কারণে যুক্তরাষ্ট্রের শ্রমিক সংগঠনগুলোর জোট চার্জ টু উইন এবং মেকিং চেঞ্জ এট ওয়ালমার্ট পাঁচ কোটি ডলারের ক্ষতিপূরণের জন্য প্রচারণা শুরু করছে৷ যুক্তরাষ্ট্রের ১০টি শহরে ওয়ালমার্টের স্টোর এবং কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এই ক্যাম্পেইন হবে৷

তাতে তাজরীন-এর পোশাক শ্রমিক সুমি আবেদীরও অংশ নেবেন৷ তিনি ইতিমধ্যেই যুক্তরাষ্ট্র গেছেন৷

বাবুল আক্তার জানান, মূল ক্যাম্পেইন শুরুর আগেই সেখানে মতবিনিময় শুরু হয়ে গেছে৷ শ্রমিক সংগঠনের নেতারা সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান, ব্যক্তি, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, ছাত্র এবং বিশেষজ্ঞের সঙ্গে কথা বলছেন৷ আর এই মতবিনিময়ে বাংলাদেশের সেন্টার ফর ওয়ার্কার সলিডারিটির প্রধান নির্বাহী কল্পনা আক্তারও অংশ নিচ্ছেন৷

বাবুল আক্তার জানান, তাজরীন ফ্যাশানস ওয়ালমার্টের বাইরেও লিনফে, ক্লিক, নিউ লুকসহ কিছু বিদেশি ক্রেতার জন্য পোশাক তৈরি করত৷ তারা অবশ্য ক্ষতিপূরণ দিতে রাজি হয়েছে৷ ওয়ালমার্ট রাজি না হওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের শ্রমিক সংগঠনগুলো এই প্রচারণায় নেমেছে৷

তার আশা এর মাধ্যমে তাজরীন ফ্যাশানস-এর ক্ষতিগ্রস্ত পোশাক শ্রমিকরা ক্ষতিপূরণ পাবেন৷

এদিকে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে নিহত এবং আহত শ্রমিকদের কিছু ক্ষতিপূরণ দেয়া হলেও তাজরীন কর্তৃপক্ষ এখনো কোনো ক্ষতিপূরণ দেয়নি৷

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল