January 23, 2017, 4:31 pm | ২৩শে জানুয়ারি, ২০১৭ ইং,সোমবার, বিকাল ৪:৩১

জুমার খুতবায় নজরদারি করবে সরকার

Dhaka baitulঢাকা জার্নাল: জুমার নামাজের খুতবা ও ওয়াজ মাহফিলে বয়ানের ওপর নজরদারির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

রোববার (১০ জুলাই) দুপুরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে আইনশৃঙ্খলা সম্পর্কিত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বৈঠক শেষে কমিটির সভাপতি শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘প্রতি শুক্রবার জুমার নামাজে ইমাম সাহেবরা যে বয়ান দেন তার ধরন কী, তা মনিটরিং করা হবে। সেসব বয়ানের প্রতি লক্ষ (নজরদারি) রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

ধর্মের নামে বিভিন্ন সময় যেসব ওয়াজ মাহফিল হয় তাতেও নজরদারি করা হবে বলে জানান শিল্পমন্ত্রী।

এ সময় তিনি জুমার খুতবা ও ওয়াজ মাহফিলে ইসলামের সঠিক অনুশাসন নিয়ে আলোচনার অনুরোধ জানান।

ধর্মের নামে অপকর্মের সুযোগ নেই জানিয়ে আমু বলেন, ‘আজকে আমরা কি লক্ষ করলাম। মদিনা শরীফে মসজিদে নববীর মতো পবিত্র জায়গায় বোমা হামলা হচ্ছে। তারা যদি ঘোষণা দেয় মসজিদ ভেঙ্গে ফেলতে হবে এবং তওয়াফ করা যাবে না। তাহলে এটা কী সম্ভব?’

তিনি প্রশ্ন রেখে বলেন- ‘ধর্মের নাম ভাঙ্গিয়ে যারা এসব করছে তারা কি ধর্মের প্রকৃত অনুসারি? মূলত ধর্মের নামে এ ধরনের কর্মকাণ্ডের কোনো সুযোগ নেই।’

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমুর সভাপতিত্বে বৈঠকে ছিলেন, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, স্থানীয় সরকারমন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন, পানিসম্পদমন্ত্রী আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, বিমান ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী নুরুল ইসলাম ও নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান।

এ ছাড়া পুলিশের মহাপরিদর্শক এ কে এম শহীদুল হক, ঢাকার পুলিশ কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়াসহ বিভিন্ন বাহিনী ও সংস্থার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এ বৈঠকে অংশ নেন।

ঢাকা জার্নাল, ১০ জুলাই, ২০১৬।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল