June 29, 2017, 4:37 am | ২৮শে জুন, ২০১৭ ইং,বৃহস্পতিবার, রাত ৪:৩৭

সাংবাদিকতায় পড়তে হলে ….

careers_in_journalismমির্জা রকিবুল হাসান, ঢাকা জার্নাল: শাওন গত বছর উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় বেশ ভালভাবেই উর্ত্তীন্ন হয়েছে। তবে দুঃখের বিষয়, সে কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হবার সুযোগ পায়নি। শাওনের দীর্ঘ দিনের ইচ্ছে ছিল সাংবাদিকতা বিভাগে স্নাতক ডিগ্রী অর্জন করার।

বাবা-মা’র একমাত্র সন্তান সাদিয়া ছোট থেকেই বেশ ডানপিটে।  বাস্তব জীবনে কিছুটা দুষ্টু হলেও পড়ালেখায় বেশ সুনাম আছে তার। উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় বেশ ভাল ফল নিয়েই পাশ করে সাদিয়া। তার ইচ্ছে সাংবাদিকতার মত কোন চ্যালেঞ্জিং  বিষয় নিয়ে পড়ার। সাদিয়ার এমন ইচ্ছের সাথে বাবা-মা’র দ্বিমত নেই। কিন্তু বাধ সাধে, পাবলিক বিশ্ববিবিদ্যালয় গুলোর সেশন-জট।  কোথায় সাংবাদিকতা বিষয়ে পড়বে  এ নিয়ে বেশ ভাবনায় পড়ে সাদিয়া এবং তার অভিভাবক।

শাওন এবং সাদিয়ার মত অনেক শিক্ষার্থীই উচ্চমাধ্যমিক শেষে এমন সমস্যায় পরে। তাদের জন্য সুখবরটা হল  পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশাপাশি এখন দেশে অনেক বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়েও সাংবাদিকতা বিষয়টি পড়ানো হয় ।

বর্তমান সময়ের প্রেক্ষাপটে সাংবাদিকতা পেশাটি সত্যিকার অর্থেই অনেকের কাছে এটি একটা স্বপ্নের পেশা। বিশ্বজুড়ে চ্যালেঞ্জিং পেশা হিসেবে স্বীকৃত সাংবাদিকতা পেশার বিস্তৃত হচ্ছে প্রতিনিয়ত। বাংলাদেশেও এর বিস্তৃতি ক্রমশই বাড়ছে। দেশে এই পেশার ক্ষেত্র বৃদ্ধিতে প্রতিনিয়ত নতুন নতুন টেলিভিশন চ্যানেল , এফএম রেডিও এবং সংবাদপত্র বাজারে আসছেই। সেই সাথে রয়েছে তথ্যপ্রযুক্তির নতুন সংস্করন অনলাইন সংবাদপত্র। গণমাধ্যমের এই প্রতিটি ক্ষেত্রেই রয়েছে দক্ষ জনশক্তির ব্যাপক চাহিদা। সেই সাথে রয়েছে কাজের উপযুক্ত পারিশ্রমিক এবং যোগ্য সম্মানের প্রতিশ্রুতি।

 

যে সকল বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতা বিভাগ রয়েছে-

ইউল্যাব আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়, ইনডিপেন্ডেন্ট আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়, ষ্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়, ইউনিভার্সিটি অফ ডেভেলপমেন্ট অলটারনেটিভ (ইউডা), ডেফোডিল আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয় (ডিআইইউ), আমেরিকান আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়, গ্রীন বিশ্ববিদ্যালয়।

 

কি কি বিষয় পড়ানো হয়?

বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ে সাধারনত সাংবাদিকতা বিভাগে কমপক্ষে ৩৬ এবং সর্বোচ্চ ৪৪ টি বিষয় পড়ানো হয়ে থাকে। এই বিভাগের উল্লেখযোগ্য বিষয়গুলো হলো, সাংবাদিকতার ধারনা (কনসেপ্ট অফ জার্নালিজম), সাংবাদিকতার ইতিহাস, আলোকচিত্র, ভিডিওগ্রাফি, গণযোগাযোগ, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক, তথ্য প্রযুক্তি ও যোগাযোগ (আইসিটি), ফিচার এবং সৃষ্টিশীল লেখা (ফিচার এন্ড ক্রিয়েটিভ রাইটিং)।

 

ভর্তি হতে হলে যে বিষয়গুলো খেয়াল রাখতে হবে,

প্রথমত, লক্ষ্য রাখতে হবে বিভাগটিতে শিক্ষক হিসেবে কারা রয়েছেন । কেননা একজন যোগ্য শিক্ষক পারেন ভালো মানের শিক্ষা পরিবেশন করতে।

দ্বিতীয়ত, লক্ষ রাখতে হবে বিশ্ববিদ্যালয়টির অবস্থান শহরের কোথায় । বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে শহরের অন্যান্য প্রান্তের যোগাযোগ ব্যবস্থা ভালো কি না তা অবশ্যই ভেবে দেখতে হবে ।

তৃতীয়ত, বিশ্ববিদ্যালয়ের মান যাচাইয়ের ক্ষেত্রে ইউজিসি র‌্যাংকিং একটি অন্যতম মাপকাঠি। তাই ভর্তি হবার পূর্বে অবশ্যই যাচাই করে দেখতে হবে বিশ্ববিদ্যলয়টির ইউজিসি র‌্যাংকিং কত।

চতুর্থত, সাংবাদিকতা বিভাগটির জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে ভালো মানের মিডিয়া ল্যাব আছে কিনা তার খোঁজ নিতে হবে। বিভাগটিতে অধ্যয়নের জন্য সমৃদ্ধ লাইব্র্রেরীও আছে কি না তাও খতিয়ে দেখতে হবে।

 

দেশে যে সকল বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে সাংবাদিকতা বিষয়টি পড়ানো হচ্ছে তার মধ্যে ডেফোডিল আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয় বেশ অন্যতম। এই বিশ্ববিদ্যালয়ে মানবিক ও সমাজ বিজ্ঞান অনুষদের অধীনে এই বিষয়টি পড়ানো হয়। এখানে স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর উভয়ই করা যায়। দেশ বরেণ্য অধ্যাপক ডঃ গোলাম রহমান এই অনুষদের ডিন হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। সাংবাদিকতা বিভাগটির উপদেষ্ঠা হিসেবে আছেন প্রখ্যাত অধ্যাপক ডঃ সাখাওয়াত আলী খান। বিভাগটিতে ১২ জন শিক্ষার্থীর জন্য ১ জন করে শিক্ষক রয়েছেন। এই বিভাগে আছে একটি স্বয়ংসম্পূর্ন ডিজিটাল মিডিয়া ল্যাব। সাংবাদিকতা বিষয় সম্পর্কিত লাইব্রেরীতে আছে আটশত’র অধিক বই। এছাড়াও, সাংবাদিকতায় শিক্ষার্থীর মানোন্নয়নের জন্য আছে ক্যাম্পাস রেডিও, মাসিক পত্রিকা, কমিউনিকেশন ক্লাব।

সাংবাদিকতা পেশা হিসেবে কেমন প্রশ্ন করলে ডেফোডিল আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিভাগের বিভাগীয় প্রধান সৈয়দ মিজানুর রহমান বলেন , “ বর্তমানে শিক্ষার্থীরা চ্যালেঞ্জিং পেশায় ঝুঁকছে। চ্যালেঞ্জি পেশা হিসেবে সাংবাদিকতা সবার শীর্ষে। তথ্যপ্রযুক্তির উন্নয়নের সাথে সাথে এই পেশার ব্যাপ্তি দিন দিন বাড়ছেই। বর্তমান বাজারে এই পেশায় দক্ষ লোকবলের চাহিদা ব্যাপক।”

বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার মান সম্পর্কে তিনি বলেন , “ আমরা চেষ্টা করি প্রথাগত শিক্ষাদানের পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন বিষয়ে প্রায়োগিক শিক্ষা দিতে। এ ক্ষেত্রে এই বিভাগ সম্পর্কিত দেশসেরা শিক্ষকদের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের ক্লাস নেয়া হচ্ছে।”

 

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল