July 28, 2017, 8:36 am | ২৮শে জুলাই, ২০১৭ ইং,শুক্রবার, সকাল ৮:৩৬

সুন্দরবনে ‌‌‌৭ দস্যুর আত্মসমর্পণ

bagerhatঢাকা জার্নাল: বিপুল অস্ত্রসহ র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) কাছে আত্মসমর্পণ করেছে সুন্দরবনের দস্যু মাস্টার বাহিনী।

রোববার (২৯ মে) সকাল সাড়ে ৬টার দিকে সুন্দরবন পূর্ব বনবিভাগের হাড়বাড়িয়া এলাকায় র‌্যাবের কাছে এ দস্যু বাহিনীর সাত সদস্য আত্মসমর্পণ করেন।

এদের মধ্যে সোহাগ, সুজন ও মাস্টার বাহিনীর প্রধান মোস্তফা শেখ ওরফে মজিদ ওরফে কাদের মাস্টারের নাম জানা গেছে।
মাস্টার বাহিনীর প্রধান বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার কাটাখালী গ্রামের লতিফ শেখের ছেলে বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে।

সকাল পৌনে ১০টার দিকে বরিশাল র‌্যাব-আট এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট ফরিদুল আলম  জানান, আত্মসমর্পণ প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। এরই মধ্যে সাতজন অস্ত্র জমা দিয়েছেন। দুপুরে বাগেরহাটের মংলায় আনুষ্ঠানিকভাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে অস্ত্র জমা দিয়ে দস্যুরা আত্মসমর্পণ করবেন।

এর আগে শনিবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে খুলনা র‌্যাব-ছয় জানায়, রোববার মংলায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের কাছে অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণ করবেন মাস্টার বাহিনীর দস্যুরা।

সূত্র বলছে, আত্মসমর্পণে যাওয়া দস্যুরা এ পর্যন্ত (সকাল পৌনে ১০টা) দেশি-বিদেশি ৫১টি আগ্নেয়াস্ত্র ও পাঁচ হাজার গুলি জমা দিয়েছেন।

র‌্যাবের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, দেশের পশ্চিম উপকূল এবং সুন্দরবনের জেলে, বাওয়ালী, মৌয়ালদের ত্রাস ছিল দস্যু মাস্টার বাহিনী। নৌকা ও জালের হিসাব করে নির্ধারিত হারে দস্যুদের চাঁদা দিতে হতো জেলে ও বনজীবীদের। এতোদিন অপহরণ, মুক্তিপণ আদায়সহ বিভিন্ন অপরাধে জড়িত ছিল এ বাহিনীর সদস্যরা।

দুপুর ২টায় আত্মসমর্পণের আনুষ্ঠানিকতা শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সংবাদ সম্মেলন করে বিষয়টি সম্পর্কে সবাইকে অবহিত করবেন। আত্মসমর্পণে যাওয়া দস্যুদের আইনের কাছে সোপর্দ করতে স্থানীয় পুলিশও বিশেষ ব্যবস্থা নিয়েছে।

এদিকে, যারা আত্মসমর্পণ করতে যাচ্ছেন তারা শনিবার রাতে সাংবাদিকদের জানান, সব আইনি প্রক্রিয়া শেষ করে তারা আবার স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে চান।

ঢাকা জার্নাল, মে ২৯, ২০১৬।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল