June 23, 2017, 7:47 pm | ২৩শে জুন, ২০১৭ ইং,শুক্রবার, সন্ধ্যা ৭:৪৭

আবারও খাওয়ানো হবে ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাপসুল

আবারও খাওয়ানো হবে ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাপসুল

 ঢাকা জার্নালA-Tika-BG-72520130313005101: ‘অপপ্রচার পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে দেশের বাদ পড়া শিশুদের আবারও ভিাটমিন ‘এ’ প্লাস ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে। আর এর পাশপাশি খাওয়ানো হবে কৃশিনাশক ওষুধ এলবেনডাজল। তবে এ ওষুধ খাওয়াতে হবে ভরা পেটে। খালি পেটে খাওয়ালে সমস্যা দেখা দিতে পারে।’

ভিটামিন এ প্লাস ক্যপসুল ক্যাম্পেইন চলাকালে শিশু মৃতুর গুজবের পর বুধবার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী ডা: ক্যাপ্টেন (অব) মজিবুর রহমান ফকির এবং মঙ্গলবার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী আ.ফ.ম রুহুল হক এসব তথ্য দেন।

মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী আ.ফ.ম রুহুল হকও এমনটি বলেছিলেন। ওইদিন তিনি আরো বলেন, “খালি পেটে শিশুদের কৃমি নাশক ওষুধ এলবেনডাজল খাওয়াবেন না। ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর পাশিপাশি ভরা পেটে শিশুদের এবেনডাজল খাওয়ান।”

মঙ্গলবার ক্যাম্পেইন শুরুর পর থেকেই দেশজুড়ে চলে অপপ্রচার। লাখ লাখ শিশু ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাপসুল থাওয়া থেকে বিরত থাকে। শিশুর পিতা-মাতারা আতঙ্কিত হলে এ পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। অপরদিকে খালি পেটে এলবেনডাজল খাওয়ানোর কারণে অনেক শিশু সামান্য অসুস্থ হয়ে পড়লে দেশের বিভিন্ন এলাকায় আতঙ্ক চরমে রূপ নেয়।

এ পরিস্থিতি বিবেচনা করে বুধবার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করে আবার ভিটামিন ‘এ’ ক্যপসুল খাওয়ানো হবে।

মঙ্গলবার ছিল “জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন”। ওইদিন ছয় মাস থেকে ৫ বছর বয়সী দেশের সব শিশুকে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর কথা ছিল।
ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর পাশপাশি দুই থেকে পাঁচ বছর বয়সী দেশের সব শিশুকে কৃমি নাশক বড়ি এলবেনডাজল খাওয়ানোরও কথা ছিল।

প্রায় দুই কোটি ১০ লাখের অধিক শিশুকে এ কায়ক্রমের আওতায় ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানো কথা থাকলেও লাখ লাখ শিশু বাদ পড়ে। আর এক কোটি ৬৭ লাখের অধিক শিশুকে কৃমি নাশক বড়িও খাওয়ানোর কথা থাকলেও তারাও বাদ পড়ে।

ঢাকা জার্নাল, মার্চ ১৩, ২০১৩

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *



এই পাতার আরো খবর -

জার্নাল